রবিবার , ১৬ ডিসেম্বর ২০১৮

কুকুরের ভয়ে লেজ গুটিয়ে পালালো চিতা [ভিডিও]

নিজের গলিতে কুকুরই বাঘ- এমন কথা অনেকেই শুনেছেন। যার যে স্থান, সেখানে সে-ই হিরো। এর চাক্ষুস প্রমাণ মিলল ভারতের এক ফরেস্ট রিজার্ভে। রাস্তার একটি কুকুরকে হামলা করেও অবশেষে লেজ গুটিয়ে পালাতে হল এক চিতাবাঘকে।

জয়পুরের ঝালানা ফরেস্ট রিসার্ভের ঘটনা। ২০১৭ সালের মার্চ মাসে এর ভেতরেই তৈরি হয়েছে লেপার্ড সাফারি পার্ক। সেখানে জঙ্গলের একটি মন্দির আবার একটি কুকুরের ঘর-বাড়ি। পালিত কুকুর নয়, রাস্তার কুকুর যাকে বলে। সেখানে সে নিশ্চিন্তে শুয়ে ছিল। আচমকা তারওপর হামলা করল দুই বছর বয়সী এক চিতাবাঘ। তবে সে বোধহয় বুঝে উঠতে পারেনি নিজের এলাকায় কুকুরই বাঘ। সারমেয়টি এমন চিত্‍‌কার শুরু করল, তা দেখে থতমত খেয়ে যায় চিতাবাঘটি। একটু একটু করে পিছাতে থাকে সে। আর নজর রেখে চলে কুকুরটির দিকে।

গৃহপালিত পশুটি অবশ্য একটুও ভয় না-পেয়ে হিংস্র জন্তুটির দিকে তাকিয়ে ক্রমাগত চিত্‍‌কার করে যায়। বেগতিক দেখে ধীরে ধীরে ঝোঁপের আড়ালে গা ঢাকা দেয় সেই চিতাবাঘ।

এই গোটা এপিসোড ক্যামেরাবন্দি করেছেন একদল পর্যটক। তারা তখন ওই সাফারি পার্ক পরিদর্শনে গিয়েছেন। আর আচমকাই তাদের সামনে ধরা দেয় এই বন্য সৌন্দর্য। পর্যটকদের নিয়ে যে গাড়িটি সাফারি পার্কে ঢুকেছিল, তার চালক বেদ প্রকাশ বললেন, ওই এলাকায় লেপার্ড দেখার জন্য কয়েক মিনিট গাড়ি দাঁড় করানো হয়। আমাদের ভাগ্য সুপ্রসন্ন ছিল। এতো রোমাঞ্চ যে আমাদের জন্য অপেক্ষা করে রয়েছে, তা বুঝতে পারিনি।

তিনি ও অন্য পর্যটকরা এরপর কুকুরটিকে এসকর্ট করে সাফারি পার্কের বাইরে নিয়ে যায়। চিতাবাঘটি তার ওপর আবার হামলা চালাতে পারে বলে আশঙ্কা ছিল তাদের।

Comments

Check Also

মন্দিরের প্রসাদ খেয়ে ভারতে ১১ জনের মৃত্যু, অসুস্থ ৮২

ভারতের একটি মন্দিরের প্রসাদ খেয়ে ১১জনের মৃত্যু হয়েছে। গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়েছে ৮২জন। খবর এনডিটিভির। …