Wednesday , 3 June 2020

র‍্যাবের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ মুন্সীগঞ্জে ২ যুবক নিহত

মুন্সীগঞ্জ সদরে গতকাল মঙ্গলবার দুপুরে র‍্যাবের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ দুই যুবক নিহত হয়েছেন। এ সময় র‍্যাবের দুই সদস্য গুলিবিদ্ধসহ পাঁচজন আহত হয়েছে। র‍্যাবের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, নিহত খসরু মিয়া ওরফে লেংরা খসরু (৩৭) ও সুমন ওরফে কানা সুমন (৩৫) শীর্ষ সন্ত্রাসী। তাঁদের বিরুদ্ধে কমপক্ষে ১০টি মামলা রয়েছে।

অভিযানে নেতৃত্বদানকারী র‍্যাব-১১-এর এসপি এনায়েত হোসেন মান্না এসব তথ্য নিশ্চিত করে জানান, গতকাল দুপুর সোয়া ২টার দিকে একটি প্রাইভেট কারযোগে শীর্ষ সন্ত্রাসী লেংরা খসরু ও কানা সুমন সদরের বল্লালবাড়ি মসজিদের সামনে আসেন। গোপন সূত্রে এ খবর পেয়ে র‍্যাব অভিযান চালায়। এ সময় র্যাব সদস্যদের লক্ষ্য করে সন্ত্রাসীরা গুলি ছুড়লে র‍্যাব পাল্টা গুলি চালায়। পরে কানা সুমন মসজিদের সামনের রাস্তায় এবং লেংরা খসরু পালানোর সময় বাড়ির ভেতরে গুলিবিদ্ধ হয়ে নিহত হন। ঘটনাস্থল থেকে দুটি বিদেশি পিস্তল, পাঁচ রাউন্ড গুলি ও ৩৯ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করা হয়।

এনায়েত হোসেন মান্না আরো জানান, সন্ত্রাসীদের ছোড়া গুলিতে র‍্যাবের ডিএডি মোকারম হোসেনের হাতে ও ল্যান্স নায়েক সাফায়েত হাতে ও শরীরে অন্য স্থানে গুলিবিদ্ধ হন। তাঁদের ঢাকায় সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ) ভর্তি করা হয়েছে। আহত অন্য তিন র‍্যাব সদস্যকে মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। লাশ দুটি জেনারেল হাসপাতাল মর্গে রাখা হয়েছে।

জানা গেছে, নিহত কানা সুমন জেলা শহরের মধ্য কোর্টগাঁও এলাকার আবুল কাশেমের ছেলে ও লেংরা খসরু বল্লালবাড়ি এলাকার সুরুজ মিয়ার ছেলে

Comments

Check Also

সিলেটে ‘বিরোধ মেটাতে গিয়ে’ ছুরিকাঘাতে ভাতিজা খুন

সিলেট সদর উপজেলায় জমি নিয়ে ‘বিরোধ মেটাতে’ গিয়ে চাচার ছুরিকাঘাতে ভাতিজা খুন হয়েছেন। নিহত আল …