Sunday , 25 August 2019

হাসপাতালে স্ত্রীর মরদেহ রেখে পালাল স্বামী।

শিল্পী বরগুনা সদর উপজেলার ৬ নম্বর বুড়িরচর ইউনিয়নের চরকগাছিয়া গ্রামের বাসিন্দা ফারুক আকনের স্ত্রী। তাদের সংসারে চার সন্তান রয়েছে।

নিহত শিল্পীর পরিবারের অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, কিছুদিন আগে শিল্পীর বোন মাজেদা বিদেশ থেকে বাংলাদেশে এসে বোন জামাই ফারুকের বাড়িতে বেড়াতে আসেন। এ সময় দুলাভাই ফারুক শালিকা মাজেদার কাছে ৫০ হাজার টাকা ধার চান। সেই সময় মাজেদা দুলাভাইকে টাকা দিতে অস্বীকৃতি জানালে ফারুক ও তার স্ত্রী শিল্পীর মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। এ ঘটনা দেখে বোনের বাড়ি থেকে চলে যায় মাজেদা।

সেই কথা কাটাকাটির সূত্র ধরে ঘটনার দিন বিকেলে ফারুক তার স্ত্রী শিল্পীকে বেদম মারধর করে। এক পর্যায়ে শিল্পী মারা গেছে ভেবে মুখে বিষ ঢেলে রাখে ফারুক। পরে ঘটনাটি এলাকায় জানাজানি হলে স্বামী ফারুকই নিজের স্ত্রী শিল্পীকে উদ্ধার করে বরগুনা জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নিয়ে আসে। এ সময় কর্তব্যরত চিকিৎসক শিল্পীর পাকস্থলি পরিষ্কার করার পরও বাঁচাতে ব্যর্থ হন। আর শিল্পী মারা যাওয়ার খবরে স্বামী ফারুক হাসপাতাল থেকে উধাও হয়ে যান।

জেনারেল হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক তানভীর শাকিল জানান, রোগীর শরীর থেকে পয়জন নিষ্কাশন করা হলেও তাকে বাঁচানো সম্ভব হয়নি।

বরগুনা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবির মোহাম্মদ হোসেন জানান, ঘটনাটির ব্যাপারে আত্মহত্যার প্ররোচনায় থানায় মামলা হয়েছে।

Comments

Check Also

পাবনায় স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে

পাবনার সুজানগর উপজেলায় তৃতীয় শ্রেণির এক স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এই ঘটনায় শিশুটির বাবা …